Posted on

অভিভাবকত্ব প্রতিবারই জীবনে এনে দেয় এক নতুনত্বের ছোঁয়া! সামান্য ভয় এবং বিশাল দায়িত্ব কাঁধে নিয়ে বাবা-মার পথচলার শুরু, তাদের ছোট্ট সোনামনির সাথে। যোগ্য লালন পালন দ্বারা এই নরম পুতুলকে তাদের আকৃতি দিতে হবে পরিপূর্ণ মানুষরূপে। কিন্তু কিভাবে?

প্যারেন্টিং এর অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ন একটি ধাপ হলো আদর এবং শাসনের সীমারেখা অঙ্কন। অনেকেই বলেন “আমার সন্তান যাই চায়, আমি তাই দেই!” অথবা “বাচ্চাকে এমনভাবে পিটাই, ঠিক না শিখে যাবে কোথায়!” – সাইকোলজি বলে এই দুটোই ভুল প্যারেন্টিং স্টাইল!

সন্তানের আচারবিধি সঠিকপথে পরিচালিত করতে চমৎকার একটি সমাধান হলো reward therapy; অর্থাৎ আকাঙ্খিত আচরণে পুরস্কৃত করা এবং অনাকাঙ্খিত ব্যবহারে উপহার সরিয়ে দেয়া।

একটি ছোট্ট উদাহরণ দিয়ে বুঝানো যাক। আপনার সন্তান সারাক্ষণই খেলাধুলা করতে চায়, কিছুতেই পড়তে বসতে চায় না এবং বললে জিদ করে। এখানে আপনি দুটো কাজ করতে পারেন।

একঃ তাকে বকা দিয়ে/পিটিয়ে, দ্বন্দ্বে লিপ্ত হয়ে থাকে পড়তে বসাতে পারেন।

দুইঃ তাকে বুঝিয়ে বলতে পারেন, যে তার খুব পছন্দের কোন একটি জিনিস (যেমন চকলেট/কার্টুন দেখা) সে পাবে না, যদি না সে ঠিকমত পড়া শেষ করে। সে পড়লে একটি নির্দিষ্ট সময় সে খেলার জন্যও পাবে।

কোনটি তার জন্য লাভজনক হবে বলে আপনি মনে করেন? সাইকোলজি এবং গবেষণা বলে দ্বিতীয়টি! দ্বিতীয় পদ্ধতিটি হয়তো প্রথমটির মত এত দ্রুত কাজ করবে না, আপনার কয়েকদিন বোঝাতে হবে, কয়েকদিন সে কান্নাকাটি করবে, আপনার অনেক ধৈর্য লাগবে। তবে সে যখন নিজের কর্মফল নিজেই ভোগ করবে, তখন তার জীবনে একটি দীর্ঘমেয়াদী নিয়মানুবর্তিতা আসবে।

এক্ষেত্রে আপনাকে ৩টি জিনিস মনে রাখতে হবে-

১. যা ‘না’ হবে, তা সে যতই কান্নাকাটি করুক না কেন, ‘হ্যাঁ’ হবে না।যাতে সে মনে না করে, কান্না/জিদ করলেই সব পাওয়া যায়।

২. একই নিয়মের সাথে পরিবারের সবাইকে একমত থাকাটা জরুরী। তাহলে সে ঠিক-বেঠিকের সুনির্দিষ্ট সীমারেখা পাবে।

৩. যদি পুরস্কারস্বরূপ কিছু দেবার কথা বলে থাকেন, তবে সেটা যত দ্রুত সম্ভব পালন করুন, এতে কাজ দ্রুত হবে।এবং ভালো কাজে শিশুকে অবশ্যই – অবশ্যই প্রশংসা করুন।

প্রতিটি শিশুই জন্মগত ভাবে সুন্দর, তাকে সমাজের উপযুক্ত করে গড়ে তোলা অভিভাবকের দায়িত্ব। স্নেহ- মমতার পাশাপাশি, আপনার অনুপ্রেরণা, দিকনির্দেশনা এবং পর্যাপ্ত শাসনই জাতিকে উপহার দেবে একজন সুষ্ঠু মানুষ।

……………………………………………………………………………………………………………………………………………

মূল লিখাঃ

LifeSpring

আপনি এবং আপনার শিশুর মানসিক স্বাস্থ্য নিয়ে কথা বলতে বা যে কোনও পরামর্শের জন্য এক্সপার্টের সাহায্য নিতে কল করুন এবং ব্যাবহার করুন আমাদের Promo Code –

Call for booking: 01763438148 

Promo Code: 555 (General)

Promo Code: KT 555 (Kids Time Parents)*

*Kids Time parents will get 10% discount on the Counseling service from Lifepsring